ভার্চ্যুয়াল কোর্টে ৩ লাখ ২৩ হাজার আবেদন নিষ্পত্তি: আইনমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক
কোভিডের মধ্যে ভার্চ্যুয়াল কোর্টের মাধ্যমে ৩ লাখ ২৩ হাজার মামলার এপ্লিকেশন নিষ্পত্তি হয়েছে বলে জানিয়েছেন আইনমন্ত্রী আনিসুল হক।

রোববার (১২ ডিসেম্বর) বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে ডিজিটাল বাংলাদেশ দিবস ২০২১ উপলক্ষে আয়োজিত জাতীয় সেমিনার ‘ডিজিটাল বাংলাদেশের অর্জন উপকৃত সকল জনগণ’ শীর্ষক সেমিনারে তিনি একথা বলেন।

আইনমন্ত্রী বলেন, কোভিডে যখন সব বন্ধ হয়ে গিয়েছিল। কিন্তু সেই সময় দেশে অপরাধ বন্ধ ছিল না। আমরা তখন চিন্তায় পড়ে গিয়েছিলাম। ঠিক তখনি প্রধানমন্ত্রী নির্দেশনা দিলেন ভার্চ্যুয়াল কোর্ট চালু করতে। তার নির্দেশনায় ভার্চ্যুয়াল কোর্ট চালু করি। এই ভার্চ্যুয়াল কোর্টের মাধ্যমে আমরা ৩ লাখ ২৩ হাজার মামলার এপ্লিকেশন নিষ্পত্তি করতে সক্ষম হয়েছি বলে তিনি জানান।

তিনি আরও বলেন, ডিজিটাল সুবিধা ধরে বেঁধে নিয়ে আমাদের এগিয়ে যেতে হবে। টেকনোলজির সঙ্গে এগিয়ে যেতে না পারলে বিশ্বের অন্যান্য দেশ থেকে আমরা পিছিয়ে পড়বো। আর টেকনোলজিকে সাথে নিয়ে চললে আমরাও এগিয়ে যাবো বলেও তিনি মন্তব্য করেন।

তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলকের সভাপতিত্বে সেমিনারে আরো বক্তব্য রাখেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের সিনিয়র সচিব এন এম জিয়াউল আলম ও কনফিগ ভিআর এন্ড কনফিগ আরবটের সিইও রুদমিলা নওশীন। সেমিনারে মর্ডারেটর ছিলেন সামিউল হক।

সেমিনারে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ড. সেঁজুতি সাহা।

সেঁজুতি সাহা বলেন, এমবিবিএস জন্য ৭৮ হাজার টাকা খরচ হতোসেটা ৪০০ টাকার নিচে চলে এসেছে। ডিজিটাল বাংলাদেশে এখন কিচেনের কিছু প্রয়োজন হলে অর্ডার দিলে চলে। এছাড়া ফোন চাপলেই টাকা পাঠানো যায়। এই সবই সম্ভব হয়েছে একমাত্র ডিজিটাল বাংলাদেশের কারণে বলে তিনি উল্লেখ করেন।

Related Articles

Back to top button